বৃহস্পতিবার, ১৯ মে ২০২২, ০৯:২০ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
গাইবান্ধায় স্ত্রী হত্যার দায়ে স্বামীর মৃত্যুদণ্ড গাইবান্ধায় কলেজ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক  সমিতির মানববন্ধন রক্তে ভেজা তিনফসলি জমিতে ইপিজেড নির্মাণের পরিকল্পনা বাতিলের দাবি গাইবান্ধায় সাঁওতাল বাঙালি যুব সাংস্কৃতিক উৎসব অনুষ্ঠিত  সালামের খুনিদের গ্রেফতারের দাবিতে গাইবান্ধায় জাতীয় যুব জোটের মানববন্ধন ভোজ্য তেলের মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে গাইবান্ধায় সিপিবির বিক্ষোভ মিছিল গাইবান্ধায় পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের দাবিতে মানববন্ধন গাইবান্ধায় এসএসসি ব্যাচ  ৯৩ এর পুনর্মিলনী ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান কাবিলের বাজারে সিএনজির ধাক্কায় মোটর সাইকেল আরোহী নিহত দারিয়াপুরে মোটর সাইকেল দুর্ঘটনায় এক যুবক নিহত

ব্যাংকে ঋণ গ্রহন না করেও ঋণ খেলাপি হয়েছেন রুহুল

সাপ্তাহিক দারিয়াপুর ডেস্ক
  • প্রকাশের সময় : শনিবার, ৫ মার্চ, ২০২২
  • ৭৮

Hits: 3

ঋণ গ্রহন না করা স্বত্বেও গাইবান্ধার সাদুল্যাপুরে জনৈক মো. রুহুল কুদ্দুসের নামে সিআইবি রিপোর্টে স্ট্যান্ডার্ড চাটার্ড ব্যাংকে ভুয়া ঋণ খেলাপি দেখানোর প্রতিবাদে শনিবার গাইবান্ধা প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে এর প্রতিকার দাবি করা হয়।
গাইবান্ধার সাদুল্যাপুর উপজেলার ধাপেরহাট ইউনিয়নের চকনদী গ্রামের আজাহার আলীর ছেলে মো. রুহুল কুদ্দুস সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে উল্লেখ করেন, ২০১৪ সালের ১৬ এপ্রিল থেকে সরকারি চাকুরীজীবি হিসাবে সুনামের সাথে সাদুল্লাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে উপ-সহকারী কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার হিসাবে কর্মরত রয়েছেন। তিনি চলতি বছরের ৮ ফেব্রুয়ারি ব্যক্তিগত ও পারিবারিক কারণে সাদুল্লাপুর অগ্রণী ব্যাংক শাখায় ঋণের জন্য আবেদন করেন। সেখানে তাকে জানানো হয়, তার নামে স্ট্যান্ডার্ড চাটার্ট ব্যাংকের সিআইবি রির্পোটে খেলাপী ঋণ রয়েছে। তিনি অগ্রণী ব্যাংক সাদুল্লাপুর শাখার সূত্র ধরে নানাভাবে যোগাযোগ করে জানতে পারেন স্ট্যান্ডার্ড চাটার্ড ব্যাংক ঢাকা গুলশান শাখায় তার নামে ওই খেলাপি ঋণ রয়েছে। তখন রুহুল কুদ্দুস ষ্ট্যান্ডার্ড চাটার্ড ব্যাংক বগুড়া শাখার শরনাপন্ন হন। সেখানে তিনি জানতে পারেন কে বা কারা তার জাতীয় পরিচয়পত্রের তথ্য জালিয়াতির মাধ্যমে ভূয়া মোবাইল নম্বর, ই-মেইল নম্বর, বর্তমান ঠিকানা ও চাকুরীর তথ্যাদি ব্যবহার করে। এছাড়া ওই ঋণ নেয়ার সময় কাগজপত্রে ইনসেপ্টা ঔষধ কোম্পানীর বেতন সীট ব্যবহার করা হয়েছে। তিনি কোনদিনই ওই ঔষধ কোম্পানীতে চাকরি করেনি। তিনি আরও বলেন, তিনি কখনই স্ট্যান্ডাড চ্যাটার্ড ব্যাংক থেকে কোন ঋণ গ্রহণ করেননি। তাই ওই ঋণের দায় থেকে মুক্তি দেয়ার জন্য সংশ্লিষ্ট ব্যাংক কর্তৃপক্ষের কাছে তিনি আবেদন করেছেন। কিন্তু ওই ব্যাংক কর্তৃপক্ষ নানা তালবাহানা করে সময়ক্ষেপন করছেন। ভুয়া ঋণ খেলাপির বিষয়টি তিনি জানার পর ঢাকা গুলশান থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করেছেন।
সংবাদ সম্মেলনে মাধ্যমে রুহুল কুদ্দুস যথাযথভাবে সুষ্ঠ ও নিরেপেক্ষ তদন্তের মাধ্যমে ওই ঋণের দায় অব্যাহতি দানের দাবি জানান। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন মো. আমিনুর রহমান, মো. মাসুদ পারভেজ, মো. এমরান মিয়া ও মোছা. তামান্না আকতার।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

© ২০২১ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | সাপ্তাহিক দারিয়াপুর

কারিগরি সহায়তায় : শাহরিয়ার হোসাইন